সোমবার ২০ মে ২০২৪ ০২:৫৭:১০ অপরাহ্ণ

শিরোনাম

 সিনিয়র সহকারী সচিব হলেন দাগনভূঞার সাবেক এসিল্যান্ড মেহরাজ     দাগনভূঞায় ক্রীড়া, সাহিত্য ও সাংস্কৃতিক প্রতিযোগিতার পুরস্কার বিতরণ     কেএনএফের নারী শাখার প্রধান সমন্বয়ক গ্রেপ্তার     নবীকে নিয়ে ক'টু'ক্তি করায় ফেনীর কাঁচা সবজির আড়তে বাদল নামের একজনকে গণধোলাই     উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে ফেনীর দাগনভূঞায় আনসার ও ভিডিপি সদস্য বাছাই     সোনাগাজী উপজেলা পরিষদ নির্বাচন প্রতীক পেয়ে মাঠে নেমেছেন প্রার্থীরা     সোনালী ব্যাংক নবাবপুর শাখার জন্য জিএম, ডিজিএম এর স্কুল মার্কেট পরিদর্শন     নবাবপুর ইউনিয়নের পল্লী বিদ্যুৎ এ কর্মরত কর্মকর্তা-কর্মচারীদের জন্য মধ্যহ্নভোজের আয়োজন     ভাইস চেয়ারম্যান পদে বিনাপ্রতিদ্বন্ধিতায় নির্বাচিত খোদেজা খানম শাহিন গনি     সোনাগাজীর বগাদানায় ঘূর্নিঝড়ে ভেঙে পড়ছে দিনমজুরের ঘর,   

র‍্যাবের হাতে গ্রেপ্তার চাঞ্চল্যকর পর্যটক হত্যা মামলার প্রধান আসামি ওসমান গনি

প্রকাশ : অক্টোবর ১, ২০২৩ | সময় : ১১:১৯ পূর্বাহ্ণ

শ্রীমঙ্গল প্রতিনিধি: মৌলভীবাজারের শ্রীমঙ্গলের লেমন গার্ডেন রিসোর্টে চাঞ্চল্যকর পর্যটক হত্যা মামলার প্রধান আসামি ওসমান গনিকে (৩৪) গ্রেপ্তার করেছে র‌্যাব-৯ সিলেট। আজ শনিবার বিকেলে র‌্যাব-৯ এর মিডিয়া অফিসার আব্দুল্লাহ আল নোমান স্বাক্ষরিত এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়।গ্রেপ্তার ওসমান গনি কুমিল্লার মনোহরগঞ্জ থানার বচইড় (খলিল বাড়ী) এলাকার বাসিন্দা মো. ইসমাইল মিয়ার ছেলে। র‌্যাব জানায়, গোয়েন্দা তথ্যের ভিত্তিতে গত শুক্রবার দিবাগত রাত সাড়ে ১২টার দিকে গাজীপুর জেলার শ্রীপুরের ধলাদিয়া বাজার এলাকায় থেকে তাকে গ্রেপ্তার করা হয়। গত ২৭ আগস্ট শ্রীমঙ্গলের লেমন গার্ডেন রিসোর্টের বৃষ্টি বিলাশ কটেজের একটি কক্ষ থেকে শরীফুল ইসলাম (৪০) নামে একজনের মরদেহ উদ্ধার করে পুলিশ।ঘটনার বিবরণে জানা যায়, নিহত শরীফুল ইসলাম একজন কার্টুন ব্যবসায়ী। গত ২৫ আগস্ট তিনি বন্ধুদের সঙ্গে শ্রীমঙ্গলের লেমন গার্ডেন রিসোর্টে ওঠেন। ২৭ আগস্ট তাঁদের রিসোর্ট ত্যাগ করার কথা থাকলেও দুপুর পর্যন্ত রুমের ভেতর থেকে কারো সাড়া পায়নি রিসোর্ট কর্তৃপক্ষ। পরে থানায় জানালে পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে বিকল্প চাবি দিয়ে ৫ নম্বর রুমে ঢুকে শরীফুলের মাথা থেঁতলানো মরদেহ বিছানার উপর থেকে উদ্ধার করে। পুলিশ ও রিসোর্ট কর্তৃপক্ষের ধারণা ছিল শরিফুলের বন্ধুরা মিলে তাকে হত্যা করে পালিয়ে যেতে পারে। ঘটনার খবর সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ছড়িয়ে পড়লে দেশব্যাপী এ নিয়ে আলোড়ন সৃষ্টি হয়। পরে নিহত শরিফুলের স্ত্রী ৩ জনের নাম উল্লেখ করে থানায় হত্যা মামলা দায়ের করেন। ঘটনার মূল আসামিদের গ্রেপ্তার করতে ঘটনার ছায়া তদন্ত শুরু করে র‌্যাব। ঘটনার এক মাস পর হত্যাকাণ্ডের প্রধান আসামি ওসমান গনিকে গ্রেপ্তার করতে সক্ষম হয় র‌্যাব-৯। গ্রেপ্তার হওয়া আসামি ওসমান গনিকে পরবর্তী আইনি ব্যবস্থা গ্রহণে সংশ্লিষ্ট থানায় হস্তান্তর করা হয়েছে বলে জানিয়েছে র‌্যাব।